এই না হলে আমাদের সেনাবাহিনী ! স্যালুট তোমায়

বাংলাদেশ প্রশাসনের অন্যতম এক শক্তিশালি বাহিনী হচ্ছে সেনা বাহিনী । বিপদের সময় নিজের জীবনকে বাজি রেখে সব সময় দেশের জন্য ঝাঁপিয়ে পড়েন সেনাবাহিনী। তাই তাদের সুনাম অক্ষুন্ন রয়েছে এখনো। ঠিক তেমনি এক প্রশংসনীয় অবাক করা ঘটনা এসেছে আমাদের কাছে, তা আজ আপনাদের সাথে শেয়ার করছি।

গতকালকে সেনাবাহিনীর একটি টিম তদন্তের জন্য আমাদের বাড়ীতে আসে (আমার আব্বা সেনাবাহিনীতে চাকরি করতেন উনার মৃত্যুর পর পেনশন ভাতা আম্মা পাবেন, এ জন্য আমরা আবেদন করেছিলাম সেই তদন্ত টীম বাড়িতে আসে) সকাল ১০টার আগেই তদন্তটিম সিলেট থেকে আমাদের বাড়ীতে উপস্থিত! সিলেট থেকে আমাদের বাড়ীর দূরত্ব প্রায় ৮৫ কিলোমিটার! (সেনাবাহিনী বলেই তা সম্ভব)

তদন্ত শেষে অনেক রিকুয়েস্ট করেও এক কাপ চা খাওয়াতে পারিনি- এমনকি পানির বোতলটা পর্যন্ত উনি সাথে করে নিয়ে আসছেন! উনার যুক্তি আমি ডিউটিতে আছি, সরকার আমাকে বেতন দিচ্ছে রেশন দিচ্ছে, এত কিছু দেয়ার পরেও যদি আপনাদের এখানে খাই, তাহলে সেটা আমার জন্য হারাম হবে!

(যদিও নিয়মটা সম্পর্কে আমরা আগে থেকে অবগত ছিলাম) উনি ইচ্ছা করলে বলতে পারতেন এত সকাল আপনাদের কাজের জন্য আসছি নাস্তা ও পথ খরচের টাকা দেন! কিন্তু সেনাবাহিনী বলে আজ তারা এত সৎ অফিসার।

ইস! বাংলাদেশর প্রত্যেকটা বাহিনী যদি এরকম সৎ এবং বিশ্বস্ত হতো……। আমি গর্ব করে বলি আমার বাবা বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর একজন গর্বিত সদস্য ছিলেন।

ঠিক এভাবেই ঘটনাটি বলছিলেন একজন সেনাবাহিনীর ছেলে।

তো বন্ধুরা, সেনাবাহিনীর এই সৎ অফিসারের মনোমুগ্ধকর ঘটনাটি ভালো লেগে থাকলে অবশ্যই অন্যদের সাথে শেয়ার করুন।

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.