|

শাকিবের সঙ্গে বুবলির রসায়ন

শাকিবের কারণেই রেকর্ডধারী শবনম বুবলী। শাকিব খানের সঙ্গে একের পর এক নতুন ছবিতে অভিনয় করে দর্শকদের কাছে স্বনামে এখন প্রতিষ্ঠিত তিনি। বুবলীর মতো এত দ্রুত জনপ্রিয়তা খুব কম নায়িকার ললাটেই জুটেছে। এ ক্ষেত্রে তার রাশিটা একটু ভিন্নরকমই বটে। চলচ্চিত্রের বাইরে এখন ভাবনাতে কিছু নেই এ নায়িকার। নিজেকে পরিপাটি রাখাটাও নিজের অন্যতম দায়িত্ব বলেই মনে করেন। প্রতিনিয়ত নিজেকে ভেঙে দর্শকদের সামনে নতুনভাবে হাজির হতে চেষ্টা করেন।

তাই তো তার অভিনীত ছবিতে নায়ক এক হলেও চরিত্রে, স্টাইলে থাকে বৈচিত্র্য। এ প্রসঙ্গে বুবলী বলেন, ‘দর্শকরা আমাদের ভালোবাসেন বলেই টাকা দিয়ে আমাদের ছবি দেখতে হলে যান। তাই তাদের সামনে সুন্দর হয়ে উপস্থাপন আমাদের হতেই হবে।’ চলচ্চিত্রে বুবলীর অভিষেকটা ছিল রাজকীয়। অভিষেকের প্রথম বছরেই বুবলী অভিনীত দুটি ছবি একসঙ্গে মুক্তি পায়। তার ধারাবাহিকতা দেখা যাচ্ছে এবারের ঈদেও।

সম্ভবত এবারের ঈদুল ফিতরেও বুবলীকে দুই ছবির নায়িকা হিসেবে দেখা যাবে। রোজার মাসে তাই কাজের বাড়তি চাপ যাচ্ছে বলেই জানালেন তিনি। এ প্রসঙ্গে বুবলী বলেন, ‘সুপার হিরো’ ছবির কাজ ৯০ ভাগ শেষ। আর এ রমজানেই ছবির কিছু অংশের শুটিং হবে এবং সেই সঙ্গে ডাবিংও রয়েছে। তাই রমজানের মধ্যে কাজ করতে হবে। এটা নিয়ে কোনো সমস্যা নেই। কারণ এর আগেও রোজায় আমি শুটিং করেছি। আমি ফিল্মে কাজ শুরু করার পর থেকে কয়েকটি ছবির শুটিংয়ের সময়ই রোজা পেয়েছি। যেমন ‘বসগিরি’ ছবিতে কাজ করার সময় রোজা পেয়েছিলাম। এরপর আমার ‘রংবাজ’ ছবিটিও রোজার মধ্যে শুটিং ছিল।

সুপার হিরো ছাড়াও উত্তম আকাশ পরিচালিত ‘চিটাগাইঙ্গা পোয়া নোয়াখাইল্যা মাইয়্যা’ ছবিটিও ঈদে মুক্তির জন্য প্রস্তুত। সম্প্রতি সেন্সর বোর্ড থেকে ছবিটি বিনা কর্তনে ছাড়পত্রও পেয়েছে। দুটি ছবিতেই নায়ক হিসেবে রয়েছেন শাকিব খান। দুটি ছবি তো মুক্তি পাবে ঈদে। এ ছাড়া এখন ওয়াজেদ আলী সুমনের ‘ক্যাপ্টেন খান’ ও কাজী হায়াতের ‘আমার স্বপ্ন আমার দেশ’ নামে দুটি ছবি রয়েছে। এ দুটির মধ্যে ওয়াজেদ আলী সুমনের ‘ক্যাপ্টেন খান’ ছবির শুটিং করছেন তিনি। এফডিসিতে বর্তমানে এটারই কাজ চলছে।

 

সব মিলিয়ে আপন গতিতেই ছুটছেন এ নায়িকা। একের পর এক বড় বাজেটের ছবিতে অভিনয় করে যাচ্ছেন। অন্যদিকে শাকিব খানের প্রযোজনায় ‘প্রিয়তমা’ নামে একটি ছবিও রয়েছে তার হাতে। এ ছবিতেও নায়ক হিসেবে পাচ্ছেন শাকিব খানকে। সিনেমার বাইরেও এ নায়িকা কাজের পরিধি বাড়াচ্ছেন। কিছুদিন আগে একটি বিজ্ঞাপনচিত্রে মডেল হিসেবে কাজ করেছেন। বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে বর্তমানে এটি প্রচার হচ্ছে। এ ছাড়া এই রমজানে নতুন বিজ্ঞাপনে মডেল হিসেবে কাজের প্রস্তাবও পেয়েছেন তিনি।

এ প্রসঙ্গে বুবলী বলেন, ‘প্রথমবার বিজ্ঞাপনে মডেল হিসেবে কাজ করার পর বেশ সাড়া পেয়েছি। আবারও বিজ্ঞাপনে আমাকে দর্শক দেখতে পাবেন। তবে বিজ্ঞাপনের স্ক্রিপ্ট আর পণ্যের বিষয়টি ভালো লাগলে এবং ব্যাটে বলে মিললেই কাজটি করব। প্রথম বিজ্ঞাপনটি প্রচারের পর নতুন কাজের প্রস্তাব পেয়েছি। সব মিলে গেলে কবে কাজ শুরু করতে পারব তা কিছুদিন পর জানাব।’ ঈদ উপলক্ষে একটি প্রতিষ্ঠানের ফটোশুটেও অংশ নিয়েছেন এ নায়িকা। শামীম আহমেদ রনীর ‘বসগিরি’, রাজু চৌধুরীর ‘শুটার’, শাহাদৎ হোসেন লিটনের ‘অহংকার’ ও আবদুল মান্নানের ‘রংবাজ’ ছবিগুলোতে অভিনয়ের পর আর দর্শকের কাছে নতুন নেই বুবলী। প্রতিটি ছবিতে ভিন্ন ভিন্ন চরিত্রে দর্শকের সামনে হাজির হয়েছেন তিনি।

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.